Ticker

6/recent/ticker-posts

ই-শ্রম কার্ড সংক্রান্ত যাবতীয় প্রশ্নের উত্তর | E-shram card related questions answers

E-shram card all frequently asked questions answers in bengali

 প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী অর্থাৎ ভারত সরকারের তরফে ই-শ্রম কার্ডের সূচনা করা হয়েছে। যেখানে সমস্ত অসংগঠিত শ্রমিকরা এই ই-শ্রম পোর্টালে (E-shram portal) এ নিজেদের নাম নথিভুক্ত করতে পারবে এবং পরবর্তীকালে সরকারি বিভিন্ন প্রকল্পের লাভ উঠাতে পারবেন। তবে এই ই-শ্রম কার্ড (E-shram card) কে ঘিরে মানুষের মনে বাসা বাঁধছে নানান প্রশ্ন। আজ সেই সমস্ত কিছু প্রায়শই জিজ্ঞাসিত প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার চেষ্টা করবো আজকের আর্টিকেলে। 

প্রশ্ন : অসংগঠিত শ্রমিক বলতে কি বোঝায় ? 

উত্তর : যে কোনও কর্মী যিনি গৃহ-ভিত্তিক কর্মী, স্ব-নিযুক্ত কর্মী বা অসংগঠিত ক্ষেত্রে কর্মরত একজন মজুরি কর্মী এবং ESIC বা EPFO-এর সদস্য নন, তাকে অসংগঠিত কর্মী বলা হয়ে থাকে।

প্রশ্ন : ই শ্রম পোর্টালে অসংগঠিত শ্রমিক হিসেবে নাম নথিভুক্ত করার ক্ষেত্রে কি কোন ইনকামের মানদণ্ড আছে ? 

উত্তর : অসংগঠিত কর্মী হিসাবে eSHRAM-এ নিবন্ধন করার জন্য কোনও আয়ের মানদণ্ড নেই। যাইহোক, তার আয়কর দাতা হলে আপনি আবেদনের যোগ্য হবেন না।

প্রশ্ন : Eshram এ নাম রেজিষ্টার করার জন্য কি যোগ্যতা লাগবে ? 

উত্তর : অসংগঠিত এবং 16-59 বছরের মধ্যে বয়সী যেকোন কর্মী eSHRAM পোর্টালে নাম রেজিষ্টার করার যোগ্য৷

প্রশ্ন : ই শ্রম পোর্টালে নাম রেজিষ্টার করার জন্য কোন কোন ডকুমেন্টের প্রয়োজন ? 

উত্তর : eSHRAM পোর্টালে নিবন্ধন করার জন্য  নিম্নলিখিত তথ্যাদিগুলি প্রয়োজন-
আধার নম্বর
মোবাইল নম্বর, আধার লিঙ্ক
ব্যাংক একাউন্ট 
 যদি কোনও কর্মীর আধার লিঙ্কযুক্ত মোবাইল নম্বর না থাকে, তবে তিনি নিকটস্থ  তথ্য মিত্র কেন্দ্র-তে গিয়ে বায়োমেট্রিক প্রমাণীকরণের মাধ্যমে নিবন্ধন করতে পারেন।

প্রশ্ন : ই শ্রম পোর্টালে রেজিষ্টার করার পর কি কি সুবিধা পাওয়া যাবে ? 

উত্তর : রেজিষ্টার করার পরে, তিনি PMSBY-এর অধীনে 2 লাখের একটি দুর্ঘটনা বীমা কভার পাবেন। ভবিষ্যতে, অসংগঠিত শ্রমিকদের সমস্ত সামাজিক নিরাপত্তা সুবিধা এই পোর্টালের মাধ্যমে পৌঁছে দেওয়া হবে। জরুরি এবং জাতীয় মহামারীর মতো পরিস্থিতিতে, এই ডাটাবেসটি যোগ্য অসংগঠিত শ্রমিকদের প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদানের জন্য ব্যবহার করা যেতে পারে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ